ঢাকা ০৯:০০ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ২৪ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১২ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম ::
শিশু অপহরণ মামলার যাবজ্জীবন আসামি ১৩ বছর পর গ্রেফতার যুগান্তরের ২৫ বর্ষে পদার্পণ উপলক্ষে আলোচনা ও দোয়া অনুষ্ঠান লালপুরে মেধাবীদের শিক্ষাবৃত্তি ও অসহায় নারীদের সেলাই মেশিন বিতরণ মাদকমুক্ত ইন্দুরকানী গড়তে আমাদের করণীয় শীর্ষক’ আলোচনা সভা রিয়াদে Dxnএর আয়োজনে আন্তজার্তিক মাতৃভাষা দিবস পালন ও সেমিনার অনুষ্ঠিত ওআইসি সদস্য দেশগুলোর তথ্যমন্ত্রীদের সম্মেলনে যোগ দিতে তুরস্কের উদ্দেশ্যে ঢাকা ছেড়েছেন তথ্য ও সম্প্রচার প্রতিমন্ত্রী নড়াইলে হারিয়ে যাওয়া ২০টি মোবাইল আনুষ্ঠানিকভাবে ভুক্তভোগীদের নিকট হস্তান্তর পরীক্ষা কেন্দ্রে দায়িত্ব অবহেলা পাঁচ শিক্ষককে অব্যাহতি ও দুই শিক্ষর্থীকে বহিস্কার ইসদাইরে অবৈধ ক্যাবল ব্যবসাায়ী বহিস্কৃত যুবলীগ নেতার ফারুক আহমেদ শিমুল ও মনিরুজ্জামান ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযান, অফিস সীলগালা লালপুরে বিএনপির চার নেতাকে কারাগারে পাঠিয়েছে আদালত

রংপুরেও যথাযোগ্য মর্যাদায় মহান শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালিত

হীমেল কুমার মিত্র স্টাফ রিপোর্টার
  • আপডেট সময় : ০৯:১১:২৮ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ২১ ফেব্রুয়ারী ২০২৩ ৯৫ বার পড়া হয়েছে
দৈনিক যখন সময় অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

আজ ২১ ফ্রেব্রুয়ারি আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস বাঙালি জাতির বীরত্বের এক অবিস্মরণীয় গৌরবময় দিন। ১৯৫২ সালের ২১ ফেব্রুয়ারি তৎকালীন পাকিস্তান সরকার বাংলাকে রাষ্ট্রভাষা হিসেবে স্বীকৃতি না দেওয়ায় এবং পাকিস্তানের একমাত্র রাষ্ট্রভাষা হিসেবে উর্দুকে চাপিয়ে দেওয়ার প্রতিবাদে ঢাকার ছাত্র ও সাধারণ জনগণ রাস্তায় নেমে আসে।মাতৃভাষা বাংলার মর্যাদা সমুন্নত রাখার জন্য ভাষা শহীদদের সর্বোচ্চ আত্মত্যাগকে স্মরণ করে জাতি (২১ ফেব্রুয়ারি) ‘অমর একুশে’, ভাষা শহীদ দিবস এবং আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালন করে।১৯৯৯ সালের ১৭ নভেম্বর ইউনেস্কো একুশে ফেব্রুয়ারিকে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস হিসেবে স্বীকৃতি দেওয়ায়, বিশ্বজুড়ে দিবসটি পালিত হয়।

পাকিস্তানের রাষ্ট্রভাষা হিসেবে বাংলাকে স্বীকৃতি দেওয়ার দাবিতে ১৯৫২ সালের ২১ ফেব্রুয়ারি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় (ঢাবি) ক্যাম্পাস থেকে ১৪৪ ধারা ভেঙে ছাত্র-ছাত্রীরা মিছিল বের করে। মিছিলে পুলিশের গুলিতে নিহত হন সালাম, বরকত, রফিক, জব্বারসহ মাটির বীর সন্তান।

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নেতৃত্বে ১৯৪৮ সাল থেকে ৫২’র ভাষা আন্দোলন, ৬৬’র ছয় দফা, ৬৯’র গণঅভ্যুত্থান।

সারাদেশের মানুষ আজকের এই দিনটি যথাযোগ্য মর্যাদায় শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস স্মরণে শহীদ মিনারে শ্রদ্ধাঞ্জলি অর্পণের মাধ্যমে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন। সারা দেশের ন্যায় রংপুরেও বিপুল উৎসাহ উদ্দীপনা এবং বর্ণিল আয়োজনের মধ্য দিয়ে শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালিত হয়।
সোমবার (২১ ফ্রেব্রুয়ারি) রাত ১২ টা ১ মিনিটে রংপুর মহানগরীর টাউন হল চত্বরের কেন্দ্রীয় শহিদ মিনারে শ্রদ্ধাঞ্জলি জানান বাংলাদেশ প্রেসক্লাব, রংপুর বিভাগ, জেলা ও মহানগর শাখার নেতৃবৃন্দগণ।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ প্রেসক্লাব, রংপুর বিভাগীয় কমিটির সভাপতি আঃ আজিজ চৌধুরী, রংপুর জেলা শাখার সভাপতি ও রংপুর বিভাগীয় শাখার সাধারণ সম্পাদক এনামুল হক স্বাধীন, রংপুর জেলা শাখার সিনিয়র সহ-সভাপতি ও মহানগর শাখার সভাপতি রুস্তম আলী সরকার রংপুর জেলা শাখার দপ্তর সম্পাদক হারুন অর রশিদ বাবু সাধারণ সম্পাদক সাজ্জাদ আলী তুষার সহ সাধারণ সম্পাদক ও মেট্রোপলিটন পরশুরাম থানার আহ্বায়ক নুর-ই-রাব্বি, রংপুর জেলা শাখার সাংগঠনিক সম্পাদক শাহীন মির্জা সুমন, অর্থ সম্পাদক, মোশারফ হোসেন, স্বাস্থ্য বিষয়ক সম্পাদক, মোঃ জুয়েল ইসলাম, সহ স্বাস্থ্য বিষয়ক সম্পাদক ও রংপুর মেট্রোপলিটন পরশুরাম থানার সদস্য সচিব, মাটি মামুন । রংপুর মেট্রোপলিটন কোতয়ালী থানার আহ্বায়ক, লোকমান হোসেন, সদস্য সচিব, আবু হাসান, রংপুর জেলা শাখার প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক মশিউর রহমান ইরশাদ, সদস্য রায়হান , মনেষা মৌ , সোহাগী আক্তার সহ সংগঠনের অন্যান্য নেতৃবৃন্দগণ।

এই সময়ে বিভিন্ন রাজনৈতিক, সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠন এবং সর্বস্তরের জনগণ উপস্থিত ছিলেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

ট্যাগস :

রংপুরেও যথাযোগ্য মর্যাদায় মহান শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালিত

আপডেট সময় : ০৯:১১:২৮ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ২১ ফেব্রুয়ারী ২০২৩

আজ ২১ ফ্রেব্রুয়ারি আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস বাঙালি জাতির বীরত্বের এক অবিস্মরণীয় গৌরবময় দিন। ১৯৫২ সালের ২১ ফেব্রুয়ারি তৎকালীন পাকিস্তান সরকার বাংলাকে রাষ্ট্রভাষা হিসেবে স্বীকৃতি না দেওয়ায় এবং পাকিস্তানের একমাত্র রাষ্ট্রভাষা হিসেবে উর্দুকে চাপিয়ে দেওয়ার প্রতিবাদে ঢাকার ছাত্র ও সাধারণ জনগণ রাস্তায় নেমে আসে।মাতৃভাষা বাংলার মর্যাদা সমুন্নত রাখার জন্য ভাষা শহীদদের সর্বোচ্চ আত্মত্যাগকে স্মরণ করে জাতি (২১ ফেব্রুয়ারি) ‘অমর একুশে’, ভাষা শহীদ দিবস এবং আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালন করে।১৯৯৯ সালের ১৭ নভেম্বর ইউনেস্কো একুশে ফেব্রুয়ারিকে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস হিসেবে স্বীকৃতি দেওয়ায়, বিশ্বজুড়ে দিবসটি পালিত হয়।

পাকিস্তানের রাষ্ট্রভাষা হিসেবে বাংলাকে স্বীকৃতি দেওয়ার দাবিতে ১৯৫২ সালের ২১ ফেব্রুয়ারি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় (ঢাবি) ক্যাম্পাস থেকে ১৪৪ ধারা ভেঙে ছাত্র-ছাত্রীরা মিছিল বের করে। মিছিলে পুলিশের গুলিতে নিহত হন সালাম, বরকত, রফিক, জব্বারসহ মাটির বীর সন্তান।

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নেতৃত্বে ১৯৪৮ সাল থেকে ৫২’র ভাষা আন্দোলন, ৬৬’র ছয় দফা, ৬৯’র গণঅভ্যুত্থান।

সারাদেশের মানুষ আজকের এই দিনটি যথাযোগ্য মর্যাদায় শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস স্মরণে শহীদ মিনারে শ্রদ্ধাঞ্জলি অর্পণের মাধ্যমে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন। সারা দেশের ন্যায় রংপুরেও বিপুল উৎসাহ উদ্দীপনা এবং বর্ণিল আয়োজনের মধ্য দিয়ে শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালিত হয়।
সোমবার (২১ ফ্রেব্রুয়ারি) রাত ১২ টা ১ মিনিটে রংপুর মহানগরীর টাউন হল চত্বরের কেন্দ্রীয় শহিদ মিনারে শ্রদ্ধাঞ্জলি জানান বাংলাদেশ প্রেসক্লাব, রংপুর বিভাগ, জেলা ও মহানগর শাখার নেতৃবৃন্দগণ।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ প্রেসক্লাব, রংপুর বিভাগীয় কমিটির সভাপতি আঃ আজিজ চৌধুরী, রংপুর জেলা শাখার সভাপতি ও রংপুর বিভাগীয় শাখার সাধারণ সম্পাদক এনামুল হক স্বাধীন, রংপুর জেলা শাখার সিনিয়র সহ-সভাপতি ও মহানগর শাখার সভাপতি রুস্তম আলী সরকার রংপুর জেলা শাখার দপ্তর সম্পাদক হারুন অর রশিদ বাবু সাধারণ সম্পাদক সাজ্জাদ আলী তুষার সহ সাধারণ সম্পাদক ও মেট্রোপলিটন পরশুরাম থানার আহ্বায়ক নুর-ই-রাব্বি, রংপুর জেলা শাখার সাংগঠনিক সম্পাদক শাহীন মির্জা সুমন, অর্থ সম্পাদক, মোশারফ হোসেন, স্বাস্থ্য বিষয়ক সম্পাদক, মোঃ জুয়েল ইসলাম, সহ স্বাস্থ্য বিষয়ক সম্পাদক ও রংপুর মেট্রোপলিটন পরশুরাম থানার সদস্য সচিব, মাটি মামুন । রংপুর মেট্রোপলিটন কোতয়ালী থানার আহ্বায়ক, লোকমান হোসেন, সদস্য সচিব, আবু হাসান, রংপুর জেলা শাখার প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক মশিউর রহমান ইরশাদ, সদস্য রায়হান , মনেষা মৌ , সোহাগী আক্তার সহ সংগঠনের অন্যান্য নেতৃবৃন্দগণ।

এই সময়ে বিভিন্ন রাজনৈতিক, সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠন এবং সর্বস্তরের জনগণ উপস্থিত ছিলেন।