ঢাকা ০৫:৫৯ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ২৪ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১১ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম ::
শিশু অপহরণ মামলার যাবজ্জীবন আসামি ১৩ বছর পর গ্রেফতার যুগান্তরের ২৫ বর্ষে পদার্পণ উপলক্ষে আলোচনা ও দোয়া অনুষ্ঠান লালপুরে মেধাবীদের শিক্ষাবৃত্তি ও অসহায় নারীদের সেলাই মেশিন বিতরণ মাদকমুক্ত ইন্দুরকানী গড়তে আমাদের করণীয় শীর্ষক’ আলোচনা সভা রিয়াদে Dxnএর আয়োজনে আন্তজার্তিক মাতৃভাষা দিবস পালন ও সেমিনার অনুষ্ঠিত ওআইসি সদস্য দেশগুলোর তথ্যমন্ত্রীদের সম্মেলনে যোগ দিতে তুরস্কের উদ্দেশ্যে ঢাকা ছেড়েছেন তথ্য ও সম্প্রচার প্রতিমন্ত্রী নড়াইলে হারিয়ে যাওয়া ২০টি মোবাইল আনুষ্ঠানিকভাবে ভুক্তভোগীদের নিকট হস্তান্তর পরীক্ষা কেন্দ্রে দায়িত্ব অবহেলা পাঁচ শিক্ষককে অব্যাহতি ও দুই শিক্ষর্থীকে বহিস্কার ইসদাইরে অবৈধ ক্যাবল ব্যবসাায়ী বহিস্কৃত যুবলীগ নেতার ফারুক আহমেদ শিমুল ও মনিরুজ্জামান ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযান, অফিস সীলগালা লালপুরে বিএনপির চার নেতাকে কারাগারে পাঠিয়েছে আদালত

অ্যাডভোকেট মোঃ নজরুল ইসলাম খানের নেতৃত্বে পিরোজপুরে জাতীয় পার্টিতে বইছে ঐক্যের হাওয়া

মোঃ নুর উদ্দিন পিরোজপুর (বরিশাল) প্রতিনিধি‌ঃ
  • আপডেট সময় : ০৪:৩৩:৩১ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৮ অক্টোবর ২০২৩ ৪৭৭ বার পড়া হয়েছে
দৈনিক যখন সময় অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

মোঃ নুর উদ্দিন পিরোজপুর (বরিশাল) প্রতিনিধি‌ঃ

পিরোজপুর-১ পিরোজপুর, নাজিরপুর, ইন্দুরকানি উপজেলা জাতীয় পার্টির রাজনীতিতে দীর্ঘদিন পর বইতে শুরু করেছে ঐক্যর হাওয়া। আসন্ন জাতীয় সংসদ নির্বাচন সামনে রেখে নেতাকর্মীরা নিজেদের মধ্যে ঐক্যর প্রয়োজনীয়তা অনুধাবণ করে ঐক্যবদ্ধ হতে শুরু করেছে।

এতে নেতাকর্মী-সমর্থকদের মাঝে বইছে ঐক্যের সু-বাতাস। কিন্তু জাতীয় পার্টি পিরোজপুর জেলা সম্মেলন প্রস্তুতি কমিটির অনৈতিক কর্মকাণ্ডের কারণে, সাধারণ মানুষের কাছে দলের দূরত্ব বাড়ছে।
জানা গেছে, জেলা সম্মেলন প্রস্তুতি কমিটির আহ্বায়ক বহু আগে সেন্ট্রালের কাছে পদত্যাগ পত্র জমা দিয়েছেন তারপরও সদস্য সচিবকে দিয়ে বিভিন্ন জায়গায় গ্রুপিং জিইয়ে রাখছেন ।
তাদের কারণে দল প্রশ্নবিদ্ধ হচ্ছে।

জাতীয় পার্টির কেন্দ্রীয় স্বেচ্ছাসেবক পার্টির যুগ্ম শৃঙ্খলা বিষয়ক সম্পাদক মোঃ তৌনিকুল হক বলেন অ্যাডভোকেট মোঃ নজরুল ইসলাম সৎ বিচক্ষণ এবং নির্ভীক নেতা। অ্যাডভোকেট নজরুল ইসলাম এর নেতৃত্বে আমরা পিরোজপুর জেলা জাতীয় পার্টি , যুব সংহতি, স্বেচ্ছাসেবক পার্টি, তরুণ পার্টি, কৃষক পার্টি, ওলামা পার্টি, ছাত্র সমাজ, যখন এক প্লাটফর্মে দলীয় প্রোগ্রাম করতেছে, এবং দলকে সুসংগঠিত করতেছি, তখন কতিপয় লোক তাদের ব্যক্তি স্বার্থ হাসিল করার জন্য ফেসবুক রাজনীতি করতেছে। যাহা দলের জন্য অমঙ্গল ।

জাতীয় পার্টির সিনিয়র নেতা মোঃ রফিকুল ইসলাম সেলিম বলেন , অ্যাডভোকেট মোঃ নজরুল ইসলামের নেতৃত্বে ও তৎপরতায় পিরোজপুর সদর নাজিরপুর ইন্দুরকানি উপজেলা জাতীয় পার্টির নেতৃবৃন্দ উজ্জীবিত হয়ে পল্লীবন্ধু হোসেন মোহাম্মদের এরশাদের স্বপ্ন বাস্তবায়ন করার জন্য দলের চেয়ারম্যান জিএম কাদেরের নির্দেশনা মেনে এই আসনে আমরা অ্যাডভোকেট মোঃ নজরুল ইসলামকে নিয়ে লাঙ্গল প্রতীক দলের চেয়ারম্যান জিএম কাদেরকে উপহার দিতে চাই ।

আমাদের নেতাকর্মীদের বলতে চাই সতর্ক দৃষ্টি রাখো যেন কোন ফাইভ পাস নেতৃত্ব আমাদেরকে ভুল পথে পরিচালিত করতে না পারে ।
পিরোজপুর জেলা জাতীয় পার্টির সিনিয়র নেতা জেলা জাতীয় শ্রমিক পার্টির সভাপতি জনাব ওমর ফারুক নান্না বলেন,
অ্যাডভোকেট মোঃ নজরুল ইসলাম খান আমাদের জন্য একটা উজ্জ্বল নক্ষত্র এবং জাতীয় পার্টি পিরোজপুরর জন্য একটা আশীর্বাদ। অ্যাডভোকেট মোঃ নজরুল ইসলাম খান, বিগত বার কাউন্সিল নির্বাচনে পরাজিত হলেও জাতীয় পার্টিতে সারা বাংলাদেশে আইনজীবীদের মধ্যে আলোড়ন তুলে একটা সম্মানের জায়গায় স্থান করে দিয়েছেন। আমার বিশ্বাস এবং আমার আশা আমার মাননীয় চেয়ারম্যান জনাব জি এম কাদের যদি এ্যাডভোকেট মোঃ নজরুল ইসলাম সাহেবের উপরে আস্থা রেখে লাঙ্গলপ্রতিক দেন তাহলে পিরোজপুরে আমাদের হারিয়ে যাওয়া ঐতিহ্য আবার উদ্ধার করতে পারব এবং পিরোজপুর জেলাকে জাতীয় পার্টির দুর্গে রূপান্তরিত করব ইনশাআল্লাহ্।

এদিকে পিরোজপুর সদর নাজিরপুর ইন্দুরকানি আসনে এবার অ্যাডভোকেট মোঃ নজরুল ইসলাম ভোট যুদ্ধে ও জাতীয় পার্টির নেতৃত্ব আসার কথা শুনে জাতীয় পার্টির রাজনীতিতে রাতারাতি হয়েছে নাটকিয় পরিবর্তন ও ফিরেছে প্রাণচাঞ্চল্য। নেতাকর্মীরা ঐক্যের প্রয়োজনীয়তা অনুধাবন করে দীর্ঘদিনের মান-অভিমান ভুলে অ্যাডভোকেট মামা নজরুল ইসলাম খান এর নেতৃত্বে একে-অপরকে কাছে টানতে শুরু করেছে।

এতে করে এত দিনে যারা কোন পদ পদবি পায়নি, ঘরে ঢুকে ছিলেন তাদের মধ্যেও দীর্ঘদিনের বিরাজমান মান-অভিমান ও ক্ষোভ-অসন্তোষের বরফ গলতে শুরু করেছে। ব্যবসা-বাণিজ্যে, চাওয়া-পাওয়া-না পাওয়াসহ নানা কারণে যেসব নেতাকর্মীরা এতদিন নিস্ক্রীয় ছিল তারাও অ্যাডভোকেট মোঃ নজরুল ইসলামের আহবানে সাড়া দিয়ে নতুন নেতৃত্ব নিয়ে নবউদ্দ্যেমে জাতীয় পার্টির রাজনীতিতে সক্রিয় হয়ে উঠেছে।

ফলে, অ্যাডভোকেট মোঃ নজরুল ইসলামের ঐক্যবদ্ধ প্রচেষ্টায় জাতীয় পার্টি ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীদের মধ্যে বইছে ঐক্যের হাওয়া। জানা গেছে, এডভোকেট মোঃ নজরুল ইসলামের আহবানে সাড়া দিয়ে আসন্ন জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে জাতীয় পার্টির সাংগঠনিক কর্মকান্ড জোরদার হচ্ছে, নিস্ক্রীয়দের সক্রীয় এবং সংগঠনকে শক্তিশালী করার লক্ষ্যে জেলা নেতৃবৃন্দ আক্রান্ত পরিশ্রম করছে ।

এতে করে বেড়েছে নেতৃত্বের প্রতিযোগীতা, গতিশীল হয়েছে সাংগঠনিক কর্মকান্ড। আসন্ন জাতীয় সংসদ নির্বাচনে অ্যাডভোকেট মোঃ নজরুল ইসলাম লাঙ্গল প্রতীকে নির্বাচন করবেন এটা নিশ্চিত শোনার পর থেকে অ্যাডভোকেট নজরুল ইসলামের নেতৃত্বে জাতীয় পার্টির বিভিন্ন সহযোগী সংগঠনের উপজেলায় ওয়ার্ড কমিটির কর্মীসভা জনসভায় রুপ নিচ্ছে,সৃস্টি হয়েছে গণজোয়ার।

আসন্ন জাতীয় সংসদ নির্বাচন সামনে রেখে জাতীয় পার্টি ও সহযোগী সংগঠনকে ঘষেমেঝে ঢেলে সাজানোর পাশাপাশি দলকে সাংগঠনিক ভাবে শক্তিশালী করার লক্ষ্য এসব কর্মসুচি ঘোষণা করা হয়েছে। নাজিরপুর উপজেলা জাতীয় পার্টির প্রবীণ নেতা সাংবাদিক জ্যোতিষ হালদার বলেন, বিশাল বড় বড় সভা সমাবেশ করে হাতে মাইক নিয়ে যে যাই বগি আওয়াজ দিক না কেন পিরোজপুর ১ নাজিরপুর ইন্দুরকানি তে অ্যাডভোকেট মোঃ নজরুল ইসলাম এর কোন বিকল্প নাই।
আজ অ্যাডভোকেট মোঃ নজরুল ইসলাম জন্য এক নাজিরপুর ইন্দুরকানি সহ সমগ্র জেলায় জাতীয় পার্টির অঙ্গসংগঠন সর্বোচ্চ গতিশীল ও শক্তিশালী সংগঠন হিসেবে পরিনত হয়েছে।

নিউজটি শেয়ার করুন

ট্যাগস :

অ্যাডভোকেট মোঃ নজরুল ইসলাম খানের নেতৃত্বে পিরোজপুরে জাতীয় পার্টিতে বইছে ঐক্যের হাওয়া

আপডেট সময় : ০৪:৩৩:৩১ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৮ অক্টোবর ২০২৩

মোঃ নুর উদ্দিন পিরোজপুর (বরিশাল) প্রতিনিধি‌ঃ

পিরোজপুর-১ পিরোজপুর, নাজিরপুর, ইন্দুরকানি উপজেলা জাতীয় পার্টির রাজনীতিতে দীর্ঘদিন পর বইতে শুরু করেছে ঐক্যর হাওয়া। আসন্ন জাতীয় সংসদ নির্বাচন সামনে রেখে নেতাকর্মীরা নিজেদের মধ্যে ঐক্যর প্রয়োজনীয়তা অনুধাবণ করে ঐক্যবদ্ধ হতে শুরু করেছে।

এতে নেতাকর্মী-সমর্থকদের মাঝে বইছে ঐক্যের সু-বাতাস। কিন্তু জাতীয় পার্টি পিরোজপুর জেলা সম্মেলন প্রস্তুতি কমিটির অনৈতিক কর্মকাণ্ডের কারণে, সাধারণ মানুষের কাছে দলের দূরত্ব বাড়ছে।
জানা গেছে, জেলা সম্মেলন প্রস্তুতি কমিটির আহ্বায়ক বহু আগে সেন্ট্রালের কাছে পদত্যাগ পত্র জমা দিয়েছেন তারপরও সদস্য সচিবকে দিয়ে বিভিন্ন জায়গায় গ্রুপিং জিইয়ে রাখছেন ।
তাদের কারণে দল প্রশ্নবিদ্ধ হচ্ছে।

জাতীয় পার্টির কেন্দ্রীয় স্বেচ্ছাসেবক পার্টির যুগ্ম শৃঙ্খলা বিষয়ক সম্পাদক মোঃ তৌনিকুল হক বলেন অ্যাডভোকেট মোঃ নজরুল ইসলাম সৎ বিচক্ষণ এবং নির্ভীক নেতা। অ্যাডভোকেট নজরুল ইসলাম এর নেতৃত্বে আমরা পিরোজপুর জেলা জাতীয় পার্টি , যুব সংহতি, স্বেচ্ছাসেবক পার্টি, তরুণ পার্টি, কৃষক পার্টি, ওলামা পার্টি, ছাত্র সমাজ, যখন এক প্লাটফর্মে দলীয় প্রোগ্রাম করতেছে, এবং দলকে সুসংগঠিত করতেছি, তখন কতিপয় লোক তাদের ব্যক্তি স্বার্থ হাসিল করার জন্য ফেসবুক রাজনীতি করতেছে। যাহা দলের জন্য অমঙ্গল ।

জাতীয় পার্টির সিনিয়র নেতা মোঃ রফিকুল ইসলাম সেলিম বলেন , অ্যাডভোকেট মোঃ নজরুল ইসলামের নেতৃত্বে ও তৎপরতায় পিরোজপুর সদর নাজিরপুর ইন্দুরকানি উপজেলা জাতীয় পার্টির নেতৃবৃন্দ উজ্জীবিত হয়ে পল্লীবন্ধু হোসেন মোহাম্মদের এরশাদের স্বপ্ন বাস্তবায়ন করার জন্য দলের চেয়ারম্যান জিএম কাদেরের নির্দেশনা মেনে এই আসনে আমরা অ্যাডভোকেট মোঃ নজরুল ইসলামকে নিয়ে লাঙ্গল প্রতীক দলের চেয়ারম্যান জিএম কাদেরকে উপহার দিতে চাই ।

আমাদের নেতাকর্মীদের বলতে চাই সতর্ক দৃষ্টি রাখো যেন কোন ফাইভ পাস নেতৃত্ব আমাদেরকে ভুল পথে পরিচালিত করতে না পারে ।
পিরোজপুর জেলা জাতীয় পার্টির সিনিয়র নেতা জেলা জাতীয় শ্রমিক পার্টির সভাপতি জনাব ওমর ফারুক নান্না বলেন,
অ্যাডভোকেট মোঃ নজরুল ইসলাম খান আমাদের জন্য একটা উজ্জ্বল নক্ষত্র এবং জাতীয় পার্টি পিরোজপুরর জন্য একটা আশীর্বাদ। অ্যাডভোকেট মোঃ নজরুল ইসলাম খান, বিগত বার কাউন্সিল নির্বাচনে পরাজিত হলেও জাতীয় পার্টিতে সারা বাংলাদেশে আইনজীবীদের মধ্যে আলোড়ন তুলে একটা সম্মানের জায়গায় স্থান করে দিয়েছেন। আমার বিশ্বাস এবং আমার আশা আমার মাননীয় চেয়ারম্যান জনাব জি এম কাদের যদি এ্যাডভোকেট মোঃ নজরুল ইসলাম সাহেবের উপরে আস্থা রেখে লাঙ্গলপ্রতিক দেন তাহলে পিরোজপুরে আমাদের হারিয়ে যাওয়া ঐতিহ্য আবার উদ্ধার করতে পারব এবং পিরোজপুর জেলাকে জাতীয় পার্টির দুর্গে রূপান্তরিত করব ইনশাআল্লাহ্।

এদিকে পিরোজপুর সদর নাজিরপুর ইন্দুরকানি আসনে এবার অ্যাডভোকেট মোঃ নজরুল ইসলাম ভোট যুদ্ধে ও জাতীয় পার্টির নেতৃত্ব আসার কথা শুনে জাতীয় পার্টির রাজনীতিতে রাতারাতি হয়েছে নাটকিয় পরিবর্তন ও ফিরেছে প্রাণচাঞ্চল্য। নেতাকর্মীরা ঐক্যের প্রয়োজনীয়তা অনুধাবন করে দীর্ঘদিনের মান-অভিমান ভুলে অ্যাডভোকেট মামা নজরুল ইসলাম খান এর নেতৃত্বে একে-অপরকে কাছে টানতে শুরু করেছে।

এতে করে এত দিনে যারা কোন পদ পদবি পায়নি, ঘরে ঢুকে ছিলেন তাদের মধ্যেও দীর্ঘদিনের বিরাজমান মান-অভিমান ও ক্ষোভ-অসন্তোষের বরফ গলতে শুরু করেছে। ব্যবসা-বাণিজ্যে, চাওয়া-পাওয়া-না পাওয়াসহ নানা কারণে যেসব নেতাকর্মীরা এতদিন নিস্ক্রীয় ছিল তারাও অ্যাডভোকেট মোঃ নজরুল ইসলামের আহবানে সাড়া দিয়ে নতুন নেতৃত্ব নিয়ে নবউদ্দ্যেমে জাতীয় পার্টির রাজনীতিতে সক্রিয় হয়ে উঠেছে।

ফলে, অ্যাডভোকেট মোঃ নজরুল ইসলামের ঐক্যবদ্ধ প্রচেষ্টায় জাতীয় পার্টি ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীদের মধ্যে বইছে ঐক্যের হাওয়া। জানা গেছে, এডভোকেট মোঃ নজরুল ইসলামের আহবানে সাড়া দিয়ে আসন্ন জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে জাতীয় পার্টির সাংগঠনিক কর্মকান্ড জোরদার হচ্ছে, নিস্ক্রীয়দের সক্রীয় এবং সংগঠনকে শক্তিশালী করার লক্ষ্যে জেলা নেতৃবৃন্দ আক্রান্ত পরিশ্রম করছে ।

এতে করে বেড়েছে নেতৃত্বের প্রতিযোগীতা, গতিশীল হয়েছে সাংগঠনিক কর্মকান্ড। আসন্ন জাতীয় সংসদ নির্বাচনে অ্যাডভোকেট মোঃ নজরুল ইসলাম লাঙ্গল প্রতীকে নির্বাচন করবেন এটা নিশ্চিত শোনার পর থেকে অ্যাডভোকেট নজরুল ইসলামের নেতৃত্বে জাতীয় পার্টির বিভিন্ন সহযোগী সংগঠনের উপজেলায় ওয়ার্ড কমিটির কর্মীসভা জনসভায় রুপ নিচ্ছে,সৃস্টি হয়েছে গণজোয়ার।

আসন্ন জাতীয় সংসদ নির্বাচন সামনে রেখে জাতীয় পার্টি ও সহযোগী সংগঠনকে ঘষেমেঝে ঢেলে সাজানোর পাশাপাশি দলকে সাংগঠনিক ভাবে শক্তিশালী করার লক্ষ্য এসব কর্মসুচি ঘোষণা করা হয়েছে। নাজিরপুর উপজেলা জাতীয় পার্টির প্রবীণ নেতা সাংবাদিক জ্যোতিষ হালদার বলেন, বিশাল বড় বড় সভা সমাবেশ করে হাতে মাইক নিয়ে যে যাই বগি আওয়াজ দিক না কেন পিরোজপুর ১ নাজিরপুর ইন্দুরকানি তে অ্যাডভোকেট মোঃ নজরুল ইসলাম এর কোন বিকল্প নাই।
আজ অ্যাডভোকেট মোঃ নজরুল ইসলাম জন্য এক নাজিরপুর ইন্দুরকানি সহ সমগ্র জেলায় জাতীয় পার্টির অঙ্গসংগঠন সর্বোচ্চ গতিশীল ও শক্তিশালী সংগঠন হিসেবে পরিনত হয়েছে।